পোড়া ভালোবাসা-২

আমি আর আসবো না ফারজানা ।নিখাঁদ স্বর্ণে খাদ ফেলবো না আর
.
সময় কি সম্পর্কের গভীরত্ব নির্ধারণ করে দেয় ।বলো?
তোর সাথে আমি আর কথা বলবো না !
আমি কি নিশিন্দা ? বুকে হাত রাখ ! তোমার বুকে কি একটু স্পন্দন হয় না ?
মুখ ফুটে কথা বলে না  স্বণা ! তবে কি আরিফের ভাবনা ভুল ?ফারজানা কি সত্যিই আমাকে ভালোবাসে না ! আমার হৃদয়ের আওয়াজ কি সত্যিই তার কম্পন অনুভব করতে পারেনি ।সত্যিই কি সে একটা পাথর?আরিফ জানে না? সে বিশ্বাস করে না ! সে যা দেখছে তা সে বিশ্বাস করে না ! বিশ্বাস করুক আর না করুক চোখের সামনের বাস্তবতা সর্বদাই বাস্তবতা ! মুখ ফিরিয়ে চলে যায় ফারজানা ।আরিফ তাকিয়ে থাকে ,চোখের কোনে হাল্কা জল ।পথের বাঁকে দেখা যেতে ঝাপসা হয়ে আসে চোখ ।হারিয়ে গেছে সে
.
দুদিন ধরে হাসপাতালে আরিফ ।জ্বরের প্রকোপে দুদিন ধরে কিছুই আন্দাজ করতে পারেনি ,কি হয়েছিল এতক্ষণে জানে না সে ।একবার কি আসেনি সে ।মনে মনে বলে,” আমি আর ভাবতে চাই না! ভাবনা না! কিন্তু মন যে সংকল্পের বাঁধা মানে না
সকাল টা ভার্সিটির বাসে বসে ,পাশের ছিটে নাকিব বসে আছে ।নিত্যদিনে কথা হলেও আজ আর কথা হয় না ।ছুটে চলে বাস ।কিন্তু মন ছুটে না ? হৃদয় কুঠিরে প্রেমের অর্চনা ,দেবতা যে বর দেবেই ,শূন্য কুটিরে ফিরি কি করে।
এ্যাই
তুই কি করে এখানে ?নকিব কৈ?
সামনে
আরিফ তাকিয়ে দেখে নকিব সামনে ।কখন গেছে তা সে জানে না ?আর নাদিয়াই বা কখন আসলো ? তাও বুঝতে পারেনি।
তুই এসেছিস কেন?দাড়া আমি বের হব
কোথায় যাবি তুই ?
সামনে
সিট নেই তো!
দাড়িয়ে যাব।
তুই ? অসুস্থ আর দাড়িয়ে যাবি ক্যামনে
আমি অসুস্থ! তুই জানিস কিভাবে
দেখেই বোঝা যায়।বাদ দে বসে পড়!রাগ করিস  না কথা আছে তোর সাথে !
তোর সাথে কোনো কথা নেই ! হাত ছাড় আমার  
আরিফ বসে পড়ে নাদিয়ার জড়াজড়িতে
কি ?
আমাকে দেখে রেগে গেলি কেন?
না এমনি , তোকে দেখলে মনে পরে তো!
কি মনে পরে ?
না কিছু না …..
নাদিয়া বুঝতে পারে ।ভালোবাসা ।পোড়া ভালোবাসা !পুড়ে পুড়ে শুদ্ধ হচ্ছে ।আর পুড়িয়ে লাভ কি ।সোজাসাপ্টা ভূমিকায় চলে যাই —–
সুস্থ তো?
আপাতত!
আমি গিয়েছিলাম হাসপাতালে
কখন !
তুই তখন ঘুমিয়ে ছিলি ।ডাকিনি কারন সে ছিল ।ভাবছি খুব কষ্ট পাবি ।পোড়া ভালবাসাকে পুড়িয়ে কি লাভ বল! হ্যা এসেছিল আমি সত্যিই বলছি
আরিফ এতক্ষণে কিছুটা সহানুভূতির চোখে তাকায় নাদিয়ার দিকে ।নাদিয়ার বুঝতে পারে ।ভাবনা গুলো তাকে অন্য দিকে নিয়ে যায় ।সে হঠাৎ ভাবে ফারজানা তাকে ভালোবাসে ।উৎসুক হয়ে জিজ্ঞেস করে
ক্লাসে আসবে না !কতদিন দেখিনি তাকে
না আসবে না মনে হয় ।অনেকদিন ধরে আসেনি
কিন্তু কেন
আমি ঠিক জানি না! আমার মনে হয় কিছু তো একটা লুকোচ্ছে আমাদের কাছে ।তবে একটা কথা বলি ভুল বুঝো না তুমি তাকে ! বিশ্বাস রাখো।ভুল বুঝে কি লাভ
চল নেমে যাই ।পৌঁছে গেছি
চলো।
বাই
আরিফ হাত নাড়তে নাড়তে বিদায় দিতে থাকে ।মুখ ফুটে কিছু বলে না ।হৃস্পন্দন সাড়া দিচ্ছে ! নাদিয়ে দৃষ্টি সীমানার দূরে ।কিন্তু ভালবাসা যেন কমে না? পুড়তে পুড়তে বেড়ে যায় পোড়া ভালোবাসা।
চলবে ….
দেখা হবে আগামী পর্বে !
বি:দ্র: কিছুটা বাস্তব নির্ভর এই গল্পে ,বিশেষ কারণে গল্পের নায়িকা চরিত্রের নাম চেন্স করেছি

লেখা :আরিফ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

0
    0
    Your Cart
    Your cart is emptyReturn to Shop